পাশ্চাত্যকরণ কি ও পাশ্চাত্যকরণের বৈশিষ্ট ?- What is westernization and the characteristics of westernization?

পাশ্চাত্যকরণ কি ও পাশ্চাত্যকরণের বৈশিষ্ট ?- What is westernization and the characteristics of westernization?

পাশ্চাত্যকরণ কি ও পাশ্চাত্যকরণের বৈশিষ্ট ?- What is westernization and the characteristics of westernization?
পাশ্চাত্যকরণ কি ও পাশ্চাত্যকরণের বৈশিষ্ট ?- What is westernization and the characteristics of westernization?


পাশ্চাত্যকরণ -


 'Social Change in Modern India'  বা  'আধুনিক ভারতে সামাজিক পরিবর্তন' এই বইয়ে এম. এন শ্রীনিবাসের ধারণা অনুযায়ী  ভারতীয় সমাজের সাথে দীর্ঘমেয়াদী সাংস্কৃতিক যোগাযোগের মাধ্যমে পশ্চিমা সমাজের প্রযুক্তিগত প্রাতিষ্ঠানিক, আদর্শগত এবং মূল্য কাঠামোর পরিবর্তন হলো পাশ্চাত্যকারণ । এই ক্ষেত্রে, তিনি এক্ষেত্রে ব্রিটিশ প্রভাবকেই মূল্য দিয়েছেন।


পাশ্চাত্যের বৈশিষ্ট্য -


বিভিন্ন ভারতীয় ও বিদেশী সমাজবিজ্ঞানীদের উত্থাপিত বিভিন্ন শিক্ষামূলক প্রতিক্রিয়ার পরিপ্রেক্ষিতে এম এন শ্রীনিবাস পশ্চিমাকরণের নিম্নলিখিত বৈশিষ্ট্যগুলি উল্লেখ করেছেন:


1. মানবতাবাদ -


এটি পাশ্চাত্যের মৌলিক মূল্যবোধগুলির মধ্যে একটি, যা থেকে অন্যান্য সহায়ক মূল্যবোধের উদ্ভব হয় এবং এটি জাতি, অর্থনৈতিক অবস্থা, ধর্ম, বয়স এবং লিঙ্গ নির্বিশেষে সকল মানুষের কল্যাণ নিশ্চিত করে।


2. সমতা -


পাশ্চাত্যের গণতান্ত্রিক মূল্য হিসেবে সমতা সমাজে বৈষম্য হ্রাস, দারিদ্র্য বিমোচন এবং সবার স্বাধীনতা রক্ষার জন্য অনুকূল; যা সমাজতান্ত্রিক পরিকাঠামো তৈরি করতে সক্ষম।


3. ধর্মনিরপেক্ষতা -


ব্রিটিশ শাসন এবং ভারতীয় সংবিধানের পত্তন ধর্মনিরপেক্ষতার একটি নতুন মূল্য যোগ করে এবং রাষ্ট্র বৈজ্ঞানিক নৈতিকতার মূল্যবোধ সহ সকল ধর্মের প্রতি সমান শ্রদ্ধা প্রদর্শন করে।


4. সামাজিক সংস্কার উদ্যোগ -


ব্রিটিশ রাজের পাশ্চাত্যকরণের ধারণা তৎকালীন ভারতীয় সমাজের কলঙ্কিত সামাজিক অশুভ শক্তির প্রসার ও সংস্কার করে। উদাহরণস্বরূপ, সমতাবাদ এবং ধর্মনিরপেক্ষতার বিকাশে, পবিত্রতা, পর্দা এবং অস্পৃশ্যতার মত অমানবিক চর্চাকে ঘৃণা করা হয়েছে। আবার, ব্রিটিশ শাসকদের দ্বারা প্রবর্তিত আইনি ব্যবস্থা হিন্দু-মুসলিম বিচার ব্যবস্থার বিভিন্ন আইনি বৈষম্য দূর করেছে।


5. বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির প্রধান বিষয় -


ভারতে, ব্রিটিশ রেলওয়ে, স্ট্রিম ইঞ্জিন এবং বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি প্রবর্তন, যা ভারতীয় সমাজকে শিল্প করে তোলে। যা শহরের উন্নয়ন ত্বরান্বিত করেছে এবং এর ফলে মানুষ গ্রাম থেকে শহরে স্থানান্তরিত হচ্ছে।


এটাও বলা যায় যে পাশ্চাত্যের ধারণা মূল্যবান নিরপেক্ষতা। কারণ সবকিছু ই ভাল জিনিস নয়। আবার, এটা চাষাবাদের চেয়ে সহজ প্রক্রিয়া, চাষাবাদের মতো জটিল প্রক্রিয়া নয়। সর্বোপরি, পাশ্চাত্যীকরণ একটি প্রক্রিয়া যা ভারতীয় সমাজে কে পরিবর্তন সংগঠিত করে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য